২৪শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | মঙ্গলবার, ৯ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

সাহেদ, সাবরিনার উত্থানে রয়েছে ‘সরকারের নীতি’: বিএনপি

প্রকাশিতঃ জুলাই ১৬, ২০২০, ৯:২৩ অপরাহ্ণ



বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। ছবি সংগৃহীত

পঁচাওর রিপোর্ট:
করোনা পরীক্ষার নামে জালিয়াতি করা রিজেন্ট হাসপাতালের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ সাহেদ ও জেকেজি হেলথকেয়ারের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনার উত্থানের পেছনে ‘সরকারের নীতি’ দায়ী বলে বৃহস্পতিবার অভিযোগ করেছে বিএনপি।

দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, এ সরকারের নীতি হচ্ছে- মানুষ মরে মরুক, জনগণ চুলায় যাক, আমি তো ঠিক আছি। এ নীতির কারণেই সাহেদ ও সাবরিনার উত্থান হয়েছে।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির উদ্যোগে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে এক মানববন্ধন কর্মসূচিতে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, মানবপাচার ও অর্থপাচারসহ বিভিন্ন অভিযোগে কুয়েত লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য শহীদ ইসলাম পাপুলকে গ্রেপ্তার করেছে। ‘দূরাচার ও দুর্বৃত্তমূলক শাসন ব্যবস্থার কারণে গত ১২ বছরে এমন অনেক পাপুল তৈরি হয়েছে।’

বিএনপির এ নেতা বলেন, রাষ্ট্র দুর্বৃত্তদের প্রতিষ্ঠিত করছে বলে সাধারণ মানুষ তাদের নিরাপত্তা হারিয়ে এক ভয়ংকর বেষ্টনির মধ্যে বন্দী হয়ে আছে।

তিনি বলেন, এখন মানুষ আইসিইউ, ভেন্টিলেটর, মানসম্পন্ন মাস্ক ও অন্যান্য সুরক্ষা সরঞ্জামের অভাবে সরকারি হাসপাতালে সুচিকিৎসা পাচ্ছে না।

‘নকল মাস্ক আনা হয়েছে এবং এর সাথে স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ছেলে জড়িত। ভেন্টিলেটর এখন অন্যতম জীবন বাঁচানোর সরঞ্জাম। ভেন্টিলেটর ক্রয়ে আওয়ামী সিন্ডিকেট ও মন্ত্রীর আত্মীয়রা অনিয়ম করছেন। তাহলে কী করে মানুষ বাঁচবে?’ বলেন রিজভী।

জালিয়াতরা করোনার নমুনা পরীক্ষা ও সার্টিফিকেট দেয়ার অনুমোদন পাওয়ায় সারা বিশ্বে দেশের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে বলে জানান তিনি। ভুয়া করোনা পরীক্ষার কারণে ইতালিসহ বিভিন্ন দেশ বাংলাদেশের ফ্লাইট ঢুকতে দিচ্ছে না বলে তিনি উদ্বেগও প্রকাশ করেন। ইউএনবি

Leave a Reply