১লা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | মঙ্গলবার, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

যেসব খাবারে তারুণ্য ধরে রাখা যায়

প্রকাশিতঃ আগস্ট ৬, ২০২০, ৫:৫৮ পূর্বাহ্ণ



যেসব খাবারে তারুণ্য ধরে রাখা যায়। ছবি সংগৃহীত

লাইফস্টাইল ডেস্ক:
তারুণ্য ধরে রাখার জন্য কিছু খাবারের কথা বলেছেন পুষ্টিবিদরা। এসব খাবার পরিমাণমত খেলে শরীরে বয়সের ছাপ কম দেখাবে।

আসুন জেনে নেই কী সেই খাবার-

সামুদ্রিক মাছ: সামদ্রিক মাছ যৌবন ধরে রাখতে সহায়ক। দীর্ঘ দিন যৌবন ধরে রাখতে চাইলে নিয়মিত খাবার তালিকায় লাল মাংস বাদ দিয়ে সামুদ্রিক মাছ রাখুন। তাতে শরীরে প্রয়োজনীয় প্রোটিনের চাহিদা পূরণ হয়ে যাবে এবং যৌবন ধরে রাখা যাবে বহুদিন।

বাদাম: চেহারায় তারুণ্য ধরে রাখতে বাদামের জুড়ি নেই। বিশেষ করে আখরোটে ওমেগা থ্রি সমৃদ্ধ ফ্যাটি অ্যাসিড থাকায় এটি ত্বককে মসৃণ করে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ায়। আখরোটে কোলেস্টেরলের মাত্রা খুব কম থাকে। এ কারণে নিয়মিত খাদ্য তালিকায় যে কোনও ধরনের বাদাম রাখা উচিত।

অলিভ অয়েল: অলিভ অয়েল একটি উপকারী তেল। খাবার রান্নার সময় অলিভ অয়েল ব্যবহার করলে শরীরে ক্ষতিকর কোলেস্টেরলের পরিমাণ কম থাকে এবং সহজে মেদ জমে না।

গাজর ও টমেটো: গাজর ও টমেটো ত্বক ও স্বাস্থ্যের জন্য খুবই উপকারী। বিশেষ করে যৌবন ধরে রাখার ক্ষেত্রে এই দুটি সবজির জুড়ি নেই। এগুলোতে প্রচুর পরিমাণে ফাইটোনিউট্রিয়েন্ট ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আছে। এছাড়াও এতে আছে বিটা ক্যারোটিন ও লুটেইন যা শরীরের বুড়িয়ে যাওয়া রোধ করতে সহায়তা করে।

ডালিম: ত্বকের বলিরেখা প্রতিরোধ করতে প্রতিদিন ডালিম খান। এতে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ত্বক টানটান রাখতে সাহায্য করে।

হলুদ: হলুদে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টিইনফ্লামেটরী উপাদান হজমশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। সেই সঙ্গে বয়সের ছাপ পড়া রোধে বিশেষ ভূমিকা রাখে।

ডার্ক চকলেট: অনেকেই চকলেট ভালোবাসেন। যারা চকলেট ভালোবাসেন তাদের জন্য ভালো খবর হলো ডার্ক চকলেট বয়স ধরে রাখতে সহায়তা করে।

আঙ্গুর: বয়স ধরে রাখতে আঙ্গুরের জুড়ি নেই। আঙ্গুরে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আছে।

ব্রকলি: ব্রকলিতে প্রচুর পরিমাণে ফাইটোনিউট্রিয়েন্ট ও অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আছে যা বয়সজনিত বিভিন্ন অসুখ থেকে দেহকে রক্ষা করে এবং শরীরের বুড়িয়ে যাওয়ার প্রক্রিয়াকে ধীর করে ফেলে।

টক দই: টক দই মেদ ও কোলেস্টেরল কমাতে সহায়তা করে। দইয়ে প্রচুর প্রোটিন ও ক্যালসিয়াম আছে যা শরীরের গঠন ভালো রাখে এবং হাড়ের ক্ষয় রোধ করে।

পালং শাক: পালং শাকে প্রচুর পরিমাণে লুটেইন আছে যা শরীরের বুড়িয়ে যাওয়া রোধ করে এবং যৌবন ধরে রাখতে সহায়তা করে। নিয়মিত পালং শাক খেলে ত্বক চোখের বয়সজনিত সমস্যা কমে যায়।

স্ট্রবেরি: স্ট্রবেরি হোক কিংবা ব্ল্যাকবেরি, সবকটিই আপনার শরীরের জন্য খুবই ভালো। এতে প্রচুর পরিমাণ ভিটামিন সি থাকে।

রসুন: রসুনে রয়েছে এলিসিন নামের উপাদান যা দৈহিক ইন্দ্রিয়গুলোতে রক্তের প্রবাহ বাড়িয়ে দেয়।

Leave a Reply