২৭শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | শুক্রবার, ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

ভোমরা দিয়ে আসা পেঁয়াজের অধিকাংশই নষ্ট হয়ে গেছে

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ২২, ২০২০, ১১:৪২ পূর্বাহ্ণ



ভোমরা দিয়ে আসা পেঁয়াজের অধিকাংশই নষ্ট হয়ে গেছে।

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:
সাতক্ষীরার ভোমরা স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে গত তিন দিনে ৯২৫ মেট্রিক টন পেঁয়াজ আমদানি হয়েছে। তবে, ভারতের রপ্তানি নিষেধাজ্ঞার কারণে ট্রাক আটকে থাকায় এসব পেঁয়াজের অধিকাংশই নষ্ট হয়ে গেছে।

সোমবার চারটি ট্রাকযোগে ৯৬ মেট্রিক টন পেঁয়াজ ভারতের ঘোজাডাঙ্গা স্থলবন্দর দিয়ে ভোমরা বন্দরে প্রবেশ করে। এর আগে শনিবার ৩১টি ট্রাকে করে ৭২১ মেট্রিক টন এবং রবিবার পাঁচ ট্রাকযোগে ১০৮ মেট্রিক টন ভারতীয় পেঁয়াজ আসে।

মঙ্গলবার ভোমরা স্থলবন্দর সিএন্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান নাসিম বলেন, ‘গত ১৪ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত যেসব পেঁয়াজের ট্রাকের কাগজপত্র সম্পূর্ণ প্রস্তুত ছিল এমন ৪০টি ট্রাক সোমবার পর্যন্ত ভোমরা বন্দর দিয়ে প্রবেশ করেছে। কিন্তু ট্রাকগুলো ভারতের ঘোজাডাঙ্গায় প্রায় এক সপ্তাহ ধরে আটকে থাকায় এসব পেঁয়াজের বেশির ভাগই নষ্ট হয়ে গেছে। ফলে ব্যবসায়ীরা আর্থিকভাবে অনেক ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছেন।’

তিনি জানান, আরও ছয় ট্রাক পেঁয়াজ ছাড় করানো রয়েছে। সেগুলো পর্যায়ক্রমে প্রবেশ করবে। এছাড়া, এখনও দুই শতাধিক পেঁয়াজবাহী ট্রাক ভারতে আটকে রয়েছে, যার কোনো ছাড়পত্র দেয়া হয়নি। এর মধ্যে কিছু পেঁয়াজ ফিরে যাচ্ছে আর কিছু পেঁয়াজ সেখানে খালাস করে স্থানীয়ভাবে বিক্রি করে ফেলছেন ব্যবসায়ীরা। এসব পেঁয়াজ রপ্তানির জন্য প্রস্তুত থাকলেও তা বাংলাদেশে প্রবেশের অনুমতি দিচ্ছে না ভারত সরকার।

মঙ্গলবার ভোমরা স্থলবন্দরের রাজস্ব কর্মকর্তা মহসিন হোসেন বলেন, ‘গত তিন দিনে বন্দর দিয়ে মোট ৯২৫ মেট্রিক টন পেঁয়াজ দেশে প্রবেশ করেছে। আজ আরও কিছু পেঁয়াজের ট্রাক ভারত থেকে আসার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে না আসা পর্যন্ত নিশ্চিত করে কিছু বলা যাবে না।’সূত্র: ইউএনবি

Leave a Reply