২৬শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | বৃহস্পতিবার, ১১ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

পদ্মায় ধরা পড়লো ১৯ কেজি ওজনের পাঙ্গাস

প্রকাশিতঃ জুন ২৯, ২০২০, ৫:১৫ অপরাহ্ণ




রাজবাড়ী প্রতিনিধি
রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়ায় পদ্মা নদীতে জেলেদের জালে ধরা পড়েছে ১৯ কেজি ওজনের একটি পাঙ্গাস মাছ। সোমবার ভোরের দিকে চরকর্নেশনা এলাকায় বিশু হালদারের জালে এই মাছটি ধরা পড়ে। এই মৌসুমে এত বড় পাঙ্গাস এটাই প্রথম বলে স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ী ও আড়তদারদের দাবি।

স্থানীয় ব্যবসায়ী ও আড়তদারদের কাছ থেকে জানা যায়, মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার তেওতা এলাকার জেলে বিশু হালদার সঙ্গীদের নিয়ে রোববার রাতে মাছ ধরতে বের হন। ভোরের দিকে জাল টানলে বড় পাঙ্গাস মাছটি পান তারা। মাছটি বিক্রির জন্য বিশু হালদার নিয়ে যান দৌলতদিয়া ঘাটের বাজারে। ১৯ কেজি ওজনের মাছটি কিনে নেন স্থানীয় মৎস্য ব্যবসায়ী চান্দু মোল্লা।

চান্দু মোল্লা বলেন, এক হাজার ২০০ টাকা কেজি দরে তিনি মাছটি কিনেছেন। মাছটি কিনেই তিনি দৌলতদিয়া ফেরি ঘাটে গিয়ে পানিতে ভাসিয়ে রাখেন। যোগাযোগ করতে থাকেন দূর-দূরান্তে থাকা বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে। ইতিমধ্যে ঢাকার এক গাড়ি ব্যবসায়ী মাছটি কেনার আগ্রহ দেখিয়েছেন। তিনি কেজিপ্রতি ৫০ থেকে ১০০ টাকা লাভ রেখে বিক্রি করে দেবেন। এই মৌসুমে তাঁর দেখা এত বড় পাঙাশ এটাই প্রথম বলে দাবি তাঁর।

এটিই মৌসুমের বড় পাঙ্গাস বলে দাবি দৌলতদিয়া ঘাট মৎস্য ব্যবসায়ী আড়তদার সমিতির সভাপতি মো. মোহন মন্ডলের। তিনি বলেন, ১৯ কেজি ওজনের পাঙ্গাস মাছ দেখতে স্থানীয় অনেক উৎসুক মানুষ ভিড় করেন। পদ্মার বড় মাছের স্বাদ নিতে কার না ভালো লাগে? তবে এলাকার মানুষ কিনে এত বড় মাছের স্বাদ নিতে পারেন না। দৌলতদিয়া ঘাট দিয়ে যাতায়াতকারী রাজনৈতিক নেতা, শিল্পপতি, ব্যবসায়ী বা আমলারা এ ধরনের মাছ কিনে নেন।

গোয়ালন্দ উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা রেজাউল শরীফ বলেন, বর্ষা মৌসুম শুরু হয়েছে। এখন নদীতে মাঝে মধ্যে এ ধরনের বড় আকারের মাছ ধরা পড়ছে।

Leave a Reply